0 votes
84 views
in বিবিধ মাস’আলা (Miscellaneous Fiqh) by (17 points)
আসসালামু আলাইকুম
১.মায়ের সাথে ছেলের হুরমত সাব্বস্ত হলে কি বাবা মায়ের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়? নাকি ছেলে আর ছেলের বউয়ের মাঝে বিবাহ বিচ্ছেদ হয়?
২.আমার স্ত্রীর যদি অন্য নন মাহারম পুরুষের সাথে হুরমত হয় তাহলে কি আমার জন্য আমার স্ত্রী হারাম হয়ে যাবে?
যেমন:আমার স্ত্রী এক দিন বলছিল ওর টিচার নাকি নানান বাহানা করে ওকে কাম ভাব নিয়ে স্পর্শ করতো।এতে কি আমার জন্য আমার স্ত্রী হারাম হয়ে যাবে?
৩.আরো একটি ঘটনা:আমার স্ত্রী এবং আমার মাঝে এক তালাকে বায়েন হয়ে গেছে। এখন আমি ওকে আবার নতুন মহরের মাধ্যমে বিয়ে করতে চাই।কিন্তু কিছু দিন আগে সে আমাকে বলে ওর টিচার নাকি ওকে নানান বাহানা করে কাম ভাব নিয়ে স্পর্শ করেছে আবার জড়িয়ে ধরেছে।এখন আমার প্রশ্ন হলো আমি কি ওকে আমার বিয়ে করতে পারবো?নাকি টিচারের স্পর্শের কারণে আমার জন্য হারাম হয়ে গেছে?

1 Answer

0 votes
by (502,120 points)


ওয়া আলাইকুমুস-সালাম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতুহু।
বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম।
জবাবঃ-
(১)
মায়ের সাথে ছেলের হুরমত সাব্বস্ত হলে বাবা মায়ের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। ছেলে আর ছেলের বউয়ের মাঝে বিবাহ বিচ্ছেদ হয় না।

(২)
নন মাহরাম পুরুষের সাথে হুরমত হবে কেন?
আপনি আসলে হুরমতের অর্থই বুঝেননি। তাই হুরমত সম্পর্কে জানতে ভিজিট করুন-https://www.ifatwa.info/1233

مبحث فيما تثبت به حرمة المصاهرة
-المصاهرة: وصف شبيه بالقرابة، ويتحقق في أربع: إحداها زوجة الابن، وهي تشبه البنت. ثانيهما: بنت الزوجة، وهي تشبه البنت أيضا، ثالثها: زوجة الأب، وهي تشبه الأم، رابعها: أم الزوجة، وهي تشبه الأم أيضا.
হুরমতে মুসাহারাহ চারজন ব্যক্তির ব্যাপারে সাব্যস্ত হবে। (১) পুত্রবধু- যা মেয়ের সাদৃশ্য গ্রহণ করে নেয় (২) স্ত্রীর মেয়ে- ইহাও মেয়ের সাদৃশ্য গ্রহণ করে নেয়   (৩) পিতার স্ত্রী যা মায়ের সাদৃশ্য গ্রহণ করে নেয় (৪) স্ত্রীর মা- যা মায়ের সাদৃশ্য গ্রহণ করে নেয়। (আল-ফিকহু আলাল মাযাহিবিল আরবা'আহ-৪/৬১)

(৩)
টিচারেন স্পর্শের কারণে আপনার এক তালাক বায়েন প্রাপ্ত স্ত্রী আপনার জন্য হারাম হবে না। বরং আপনি তাকে নতুন ভাবে বিয়ে করতে পারবেন।।


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

--------------------------------
মুফতী ইমদাদুল হক
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন। উত্তর না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন। আপনি প্রতিমাসে সর্বোচ্চ ৪ টি প্রশ্ন করতে পারবেন।

বি.দ্র: প্রশ্ন করা ও ইলম অর্জনের সবচেয়ে ভালো মাধ্যম হলো সরাসরি মুফতি সাহেবের কাছে গিয়ে প্রশ্ন করা যেখানে প্রশ্নকারীর প্রশ্ন বিস্তারিত জানার ও বোঝার সুযোগ থাকে। যাদের এই ধরণের সুযোগ কম তাদের জন্য এই সাইট। প্রশ্নকারীর প্রশ্নের অস্পষ্টতার কারনে ও কিছু বিষয়ে কোরআন ও হাদীসের একাধিক বর্ণনার কারনে অনেক সময় কিছু উত্তরে ভিন্নতা আসতে পারে। তাই কোনো বড় সিদ্ধান্ত এই সাইটের উপর ভিত্তি করে না নিয়ে বরং সরাসরি মুফতি সাহেবদের সাথে যোগাযোগ করলে ভালো হয়। অন্যদিকে প্রতিমাসে একাধিকবার আমাদের মুফতি সাহেবগন জুমের মাধ্যমে সরাসরি প্রশ্নের উত্তর দিয়ে থাকেন। সেই ক্লাসগুলোতেও জয়েন করার জন্য অনুরোধ করা গেল। ক্লাসের সিডিউল: fb.com/iomedu.org

Related questions

...