+1 vote
30 views
in বিবিধ মাস’আলা (Miscellaneous Fiqh) by (42 points)
আসসালামু আলাইকুম।

একজনের বাসায় খাদেমা আছে।বয়স ৫৫। উনার ভাইয়ের ছেলে আছে মাহরাম। এখন উনি গ্রামে যাতায়াত করেন যে বাসায় কাজ করেন তাদের গাড়িতে, তাদের সাথেই। কারণ মাহরাম যে আছে তার পক্ষে সবসময় সম্ভব না তার ফুফুকে আনা নেয়া করা।এছাড়া অন্য জায়গায়ও তাদের সাথে উনাকে বেড়াতে নিয়ে যান।

এটা কি ঠিক হচ্ছে?

1 Answer

0 votes
by (57,120 points)
উত্তর
 وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته 
بسم الله الرحمن الرحيم 

শরীয়তের বিধান হলো এমন বৃদ্ধা মহিলা যাকে দেখলে যৌনচাহিদা জাগ্রত  হয় না,তার সাথে মুসাফাহা করতে কোনো সমস্যা নেই,যদি পুরুষ নিজের উপর নিয়ন্ত্রন রাখতে সক্ষম হন।

যখন স্পর্শ করা জায়েয তখন তাকে নিয়ে সফর করাও জায়েয হবে।এবং তার সাথে নির্জনে অবস্থান করাও জায়েয হবে।

এ বিধান তখনই যখন উক্ত বৃদ্ধা মহিলা ও স্পর্শকারী পুরুষ উভয় নিজের উপর নিয়ন্ত্রন রাখতে সক্ষম হবেন।

নতুবা কখনো জায়েয হবে না।
,
বিস্তারিত জানুন
,
★★সুতরাং প্রশ্নে উল্লেখিত ছুরতে  ৫৫ বছর বয়সী খাদেমার অবস্থা যদি এমন হয় তাকে দেখলে যৌনচাহিদা জাগ্রত  হয় না,তাহলে
 তাকে নিয়ে সফর করাও জায়েয হবে।এবং তার সাথে বাড়িতে অবস্থান করাও জায়েয হবে,যদি পুরুষ নিজের উপর নিয়ন্ত্রন রাখতে সক্ষম হন।
,
অন্যথায়  মাহরামের উপস্থিতি আবশ্যক৷।   


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

------------------------
মুফতী ওলি উল্লাহ
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

ﻓَﺎﺳْﺄَﻟُﻮﺍْ ﺃَﻫْﻞَ ﺍﻟﺬِّﻛْﺮِ ﺇِﻥ ﻛُﻨﺘُﻢْ ﻻَ ﺗَﻌْﻠَﻤُﻮﻥَ অতএব জ্ঞানীদেরকে জিজ্ঞেস করো, যদি তোমরা না জানো। সূরা নাহল-৪৩

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন উত্তর পাওয়া যায় কিনা। না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন।

Related questions

...