0 votes
18 views
in বিবিধ মাস’আলা (Miscellaneous Fiqh) by (20 points)
edited by
মানুষের জীবন বা আচরণের উপর কি তার নামের প্রভাব রয়েছে? আমার নাম মুহাম্মদ নুহান তাহেরি। লেখার সময় লেখা হয় মো. নুহান তাহেরি। যার অর্থ প্রশংসিত পবিত্র কান্না। নুহান এটা নাকি নবীর নাম। কুরান শরীফে এ নাম টা আছে। সুরাও আছে। নুহান মানে নাকি কান্না। কান্না ছাড়া আর কি কোন অর্থ আছে? মানুষ আমাকে নুহান নামেও ডাকে আবার তাহেরি নামেও ডাকে। তাহেরি নামের অর্থ নাকি পবিত্র।

আমি খুব অল্পতে কস্ট পাই আবার খুব তাড়াতাড়ি কান্না করি। আমি সারাক্ষণ দুশ্চিন্তাগ্রস্থ থাকি। ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তায় থাকি। আর অতিরিক্ত চিন্তা করি। আমি কোন সিদ্ধান্ত সঠিকভাবে নিতে পারিনা। এগুলো কি নামের কারণে?


তবে আলহামদুলিল্লাহ, জীবনে যদিও আল্লাহ অনেক ভাল রাখসেন। আমার ধারণা, আমার নামের প্রভাব আমার জীবনে পড়বে। বাকিটা জীবন অনেক দুঃখ কস্ট এর মধ্য দিয়ে অতিবাহিত হবে। এর পেছনে আমার নামের ও একটা প্রভাব থাকতে পারে। আমার কি নাম পরিবর্তন করা উচিত আকিকা দিয়ে?

1 Answer

0 votes
by (15,000 points)
edited by

ওয়া আলাইকুমুস সালাম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতুহু।

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম।

জবাবঃ

মানসিকতার উপর নামের প্রভাব

মানসিকতা ও স্বভাবের উপরও নামের একটা প্রভাব থাকে।

أَخْبَرَنِي عَبْدُ الحَمِيدِ بْنُ جُبَيْرِ بْنِ شَيْبَةَ، قَالَ: جَلَسْتُ إِلَى سَعِيدِ بْنِ المُسَيِّبِ، فَحَدّثَنِي: أَنّ جَدّهُ حَزْنًا قَدِمَ عَلَى النّبِيِّ صَلّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلّمَ فَقَالَ: مَا اسْمُكَ؟ قَالَ: اسْمِي حَزْنٌ، قَالَ: بَلْ أَنْتَ سَهْلٌ. قَالَ: مَا أَنَا بِمُغَيِّرٍ اسْمًا سَمّانِيهِ أَبِي قَالَ ابْنُ المُسَيِّبِ: فَمَا زَالَتْ فِينَا الحُزُونَةُ بَعْدُ.

আবদুল হুমাইদ বিন শায়বা বলেন, আমি হযরত সাঈদ ইবনুল মুসায়্যিবের কাছে বসা ছিলাম। তিনি তখন বললেন, আমার দাদা ‘হাযান’ একবার নবীজীর দরবারে উপস্থিত হলেন। নবীজী তাকে জিজ্ঞেস করলেন, তোমার নাম কী? দাদা বললেন, আমার নাম হাযান। (হাযান অর্থ শক্তভূমি) নবীজী বললেন- না, তুমি হচ্ছ ‘সাহল’ (অর্থাৎ তোমার নাম হাযানের পরিবর্তে সাহল রাখো; সাহল অর্থ, নরম জমিন।) দাদা বললেন, আমার বাবা আমার যে নাম রেখেছেন আমি তা পরিবর্তন করব না। সাইদ ইবনুল মুসায়্যিব বলেন, এর ফল এই হল যে, এরপর থেকে আমাদের বংশের লোকদের মেযাজে রুঢ়তা ও কর্কশভাব রয়ে গেল। -সহীহ বুখারী, হাদীস ৬১৯৩

কারো নাম অসুন্দর হলে নাবীজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম তা পরিবর্তন করে সুন্দর নাম রাখতেন। হাদীস শরীফে এ ধরনের অনেক ঘটনা বর্ণিত আছে। উদাহরণ স্বরূপ নিম্নে কয়েকটি ঘটনা উল্লেখ করা হল-

 

মুহাম্মাদ ইবনে আমর ইবনে আতা বলেন, আমি আমার মেয়ের নাম রাখলাম- বাররা (নেককার, ভালো মানুষ)। তখন যয়নব বিনতে আবি সালামা বললেন-

سُمِّيتُ بَرّةَ، فَقَالَ رَسُولُ اللهِ صَلّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلّمَ: لَا تُزَكّوا أَنْفُسَكُمْ، اللهُ أَعْلَمُ بِأَهْلِ الْبِرِّ مِنْكُمْ فَقَالُوا: بِمَ نُسَمِّيهَا؟ قَالَ: سَمّوهَا زَيْنَبَ.

আমার নাম ছিল, বাররা। নবীজী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন, তোমরা নিজেরা নিজেদের পবিত্রতা ঘোষণা কোরো না। (কারণ, বাররা অর্থ, ভালো, নেককার, পূত-পবিত্র) আল্লাহই জানেন তোমাদের মধ্যে ভালো ও পূত-পবিত্র কারা। জিজ্ঞেস করা হল, তাহলে আমরা তার কী নাম রাখতে পারি? তখন নবীজী বললেন, তার নাম যয়নাব রাখ। (নবীজীর আদেশে তখন বাররা নাম পরিবর্তন করে তার নাম যয়নাব রাখা হল।) -সহীহ মুসলিম, হাদীস ২১৪২

 

সু-প্রিয় প্রশ্নকারী দ্বীনী ভাই/বোন!

 

১. হ্যাঁ, উপরের হাদীস থেকে আমরা জানতে পারি যে, মানুষের আচরণের উপর তার নামের প্রভাব রয়েছে।

২. নুহান শব্দের অর্থ কান্না করা। আর তাহেরী শব্দের অর্থ পবিত্র।

৩. আপনার নামটা পরিবর্তন করে রাখাই মনে হয় উত্তম হবে। তবে আকিকা দেওয়া লাগবে না শুধু নাম পরিবর্তনের জন্য।


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

--------------------------------
মুফতী আব্দুল ওয়াহিদ
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)
by (20 points)
Amar ques er ans ta dile khub valo hoto hujur
by (15,000 points)
দলিলাদী বের করতে তো সময় লাগে
by (20 points)
হুজুর নুহান নামের অর্থ একটা ওয়েবসাইট এ দেখলাম বিজ্ঞতা,জ্ঞান। এই অর্থ ও কি ঠিকাছে? আর নুহান যদি নবির নাম হয় তবে কি আমি কোন সুবিধা পেতে পারি?


আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন। উত্তর না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন। আপনি প্রতিমাসে সর্বোচ্চ ৪ টি প্রশ্ন করতে পারবেন।

বি.দ্র: প্রশ্ন করা ও ইলম অর্জনের সবচেয়ে ভালো মাধ্যম হলো সরাসরি মুফতি সাহেবের কাছে গিয়ে প্রশ্ন করা যেখানে প্রশ্নকারীর প্রশ্ন বিস্তারিত জানার ও বোঝার সুযোগ থাকে। যাদের এই ধরণের সুযোগ কম তাদের জন্য এই সাইট। প্রশ্নকারীর প্রশ্নের অস্পষ্টতার কারনে ও কিছু বিষয়ে কোরআন ও হাদীসের একাধিক বর্ণনার কারনে অনেক সময় কিছু উত্তরে ভিন্নতা আসতে পারে। তাই কোনো বড় সিদ্ধান্ত এই সাইটের উপর ভিত্তি করে না নিয়ে বরং সরাসরি মুফতি সাহেবদের সাথে যোগাযোগ করলে ভালো হয়। অন্যদিকে প্রতিমাসে একাধিকবার আমাদের মুফতি সাহেবগন জুমের মাধ্যমে সরাসরি প্রশ্নের উত্তর দিয়ে থাকেন। সেই ক্লাসগুলোতেও জয়েন করার জন্য অনুরোধ করা গেল। ক্লাসের সিডিউল: fb.com/iomedu.org

Related questions

...