0 votes
109 views
in হালাল ও হারাম (Halal & Haram) by (4 points)
সাধারণভাবে জেনে এসেছি কোরআন পড়িয়ে কোন নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা দাবি করা মারাত্মক রকমের গুনাহ। বরং কেউ খুশি হয়ে যা দিবে সেটা নিতে হয়। আবার এটাও শুনেছি ক্ষেত্রবিশেষ দাবি করা জায়েজ আছে। এটা সম্পর্কে একটু পরিষ্কার তথ্য জানতে চাচ্ছি।
by (4 points)
জাযাকাল্লাহু খইর

1 Answer

0 votes
by (40,120 points)
বিসমিহি তা'আলা

জবাবঃ-
কুরআন শিক্ষা দিয়ে বেতন নেয়া জায়েয কিনা?
এ ব্যাপারে উলামায়ে কেরামদের মতপার্থক্য রয়েছে।কিছুসংখ্যক উলামায়ে কেরাম বিশেষকরে মুতাক্বাদ্দিমিন(৩০০ হিজরী পৃর্ব) হানাফি ফকিহগণ নাজায়েয বলেছেন।তবে মুতা'আখখিরিন(৩০০ হিজরী পরবর্তী) হানাফি ফকিহগণ আবার জায়েয বলেছেন।
এ দুইটি মতের মধ্যে বিশুদ্ধ মত হচ্ছে- কুরআন শিক্ষা দিয়ে বেতন নেয়া জায়েয।
দলিল হচ্ছে- নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের বাণীর ব্যাপকতা “তোমরা যে যে কাজের জন্য পারিশ্রমিক গ্রহণ কর এর মধ্যে আল্লাহর কিতাব সবচেয়ে উপযুক্ত”
[সহিহ বুখারী ও সহিহ মুসলিম]
এছাড়া যেহেতু এর প্রয়োজন রয়েছে।এবং এ শিক্ষা দিতে গিয়ে এক্ষেত্রে শিক্ষকের সময়ও আটকে যাচ্ছে, যে কারণে শিক্ষক নিজ ভরণপোষণের ব্যবস্থা গ্রহণের সুযোগ পাচ্ছেন না।তাই বিনিময় জায়েয আছে।
পূর্ববর্তী যুগে যেহেতু সকল আলেমদের জন্য সরকার কর্তৃক ভাতা নির্ধারিত ছিলো,তাই তখনকার যুগের উলামায়ে কেরাম শিক্ষার বিনিময় গ্রহণকে নাজায়েয বলেছেন।কেননা সরকারের পক্ষ্য থেকে যে পরিমাণ ভাতা আসত তা দ্বারা অনায়াসে তাদের জীবন চলে যেতো।

আল্লাহই উত্তম তাওফিকদাতা। আমাদের নবী মুহাম্মদ এর প্রতি আল্লাহর রহমত বর্ষিত হোক।
আল্লাহই ভাল জানেন।

আল্লাহ-ই ভালো জানেন।

উত্তর লিখনে

মুফতী ইমদাদুল হক

ইফতা বিভাগ, Iom.

পরিচালক

ইসলামিক রিচার্স কাউন্সিল বাংলাদেশ


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

--------------------------------
মুফতী ইমদাদুল হক
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

ﻓَﺎﺳْﺄَﻟُﻮﺍْ ﺃَﻫْﻞَ ﺍﻟﺬِّﻛْﺮِ ﺇِﻥ ﻛُﻨﺘُﻢْ ﻻَ ﺗَﻌْﻠَﻤُﻮﻥَ অতএব জ্ঞানীদেরকে জিজ্ঞেস করো, যদি তোমরা না জানো। সূরা নাহল-৪৩

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন উত্তর পাওয়া যায় কিনা। না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন।

Related questions

...