+1 vote
44 views
in সুন্নাহ-বিদ'আহ (Sunnah and Bid'ah) by (5 points)
اللهم صل على سيدنا محمد النبي الأمي وعلى آله وصحبه وسلم

১)উপরোক্ত বাক্যটি কি দরুদ হিসেবে পড়া যাবে?
২) আমরা জানি কিয়ামতের দিন আমল ওজন করা হবে,গণনা নয়। কিন্তু শুক্রবার যেহেতু বেশি বেশি দরুদ শরীফ পড়তে বলা হয়েছে সেক্ষেত্রে কি সংখ্যাগত আধিক্যকে গুরুত্ব দেয়া হয়েছে "বেশি বেশি'' দরুদ পাঠ করো যেহেতু বলা হয়েছে।
৩) যেহেতু বেশি বেশি দরুদ পড়তে বলা হয়েছে শুক্রবার, সেক্ষেত্রে দরুদে ইব্রাহিম না পড়ে কি বেশি বেশি " সাল্লাললাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম'' পড়বো শুক্রবার? কি ধরনের দরুদ পড়া যেতে পারে শুক্রবার জানাবেন দয়া করে।

1 Answer

0 votes
by (283,200 points)


বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম।
জবাবঃ-
https://www.ifatwa.info/2144 নং ফাতাওয়ায় আমরা বলেছি যে,
হযরত আনাস ইবনে মালিক রাযি থেকে বর্ণিত
عن أنس بن مالك قال : " كُنْتُ وَاقِفًا بَيْنَ يَدَيْ رَسُولِ اللَّهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وسلم فَقَالَ : ( مَنْ صَلَّى عَلَيَّ يَوْمَ الْجُمُعَةِ ثَمَانِينَ مَرَّةً غَفَرَ اللَّهُ لَهُ ذُنُوبَ ثَمَانِينَ عَامًا).فَقِيلَ لَهُ : كَيْفَ الصَّلاةُ عَلَيْكَ يَا رَسُولَ اللَّهِ؟ قَالَ : ( تَقُولُ اللَّهُمَّ صَلِّ عَلَى مُحَمَّدٍ عَبْدِكَ ونبيك ورسولك النبي الأمي، وتعقد واحداً)
তিনি বলেন,আমি রাসূলুল্লাহ সাঃ এর সামনে বসা ছিলাম,তিনি বললেন,যে ব্যক্তি শুক্রবার দিনে ৮০বার আমার উপর দুরুদ পাঠ করবে,আল্লাহ তা'আলা তার ৮০বৎসরের গোনাহকে মাফ করে দেবেন।রাসূলুল্লাহ সাঃ কে জিজ্ঞাসা করা হলো,আপনার উপর কিভাবে দুরুদ পাঠ করবো?রাসূলুল্লাহ সাঃ বললেন,তোমরা বলবে, আল্লাহুম্মা সাল্লি আ'লা মুহাম্মাদিন আবদিকা ওয়া নাবিয়্যিকা ওয়া রাসূলিকা আন-নাবিয়্যিল উম্ময়্যি। এভাবে একবার গণনা করলেন। (তারীখে বাগদাদ-১৩/৪৬৩)

সুপ্রিয় প্রশ্নকারী দ্বীনি ভাই/বোন!
দুরুদ শরীফের অনেক ফযিলত রয়েছে,বিশেষ করে শুক্রুবারের ফযিলত অনেক বেশী। সর্বোত্তম দুরুদ হল, দুরুদে ইবরাহিমী। দুরুদকে কোনো সংখ্যা দ্বারা সংখ্যায়িত করা যাবে না।


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

--------------------------------
মুফতী ইমদাদুল হক
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন। উত্তর না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন। আপনি প্রতিমাসে সর্বোচ্চ ৪ টি প্রশ্ন করতে পারবেন।

বি.দ্র: প্রশ্ন করা ও ইলম অর্জনের সবচেয়ে ভালো মাধ্যম হলো সরাসরি মুফতি সাহেবের কাছে গিয়ে প্রশ্ন করা যেখানে প্রশ্নকারীর প্রশ্ন বিস্তারিত জানার ও বোঝার সুযোগ থাকে। যাদের এই ধরণের সুযোগ কম তাদের জন্য এই সাইট। প্রশ্নকারীর প্রশ্নের অস্পষ্টতার কারনে ও কিছু বিষয়ে কোরআন ও হাদীসের একাধিক বর্ণনার কারনে অনেক সময় কিছু উত্তরে ভিন্নতা আসতে পারে। তাই কোনো বড় সিদ্ধান্ত এই সাইটের উপর ভিত্তি করে না নিয়ে বরং সরাসরি মুফতি সাহেবদের সাথে যোগাযোগ করলে ভালো হয়। অন্যদিকে প্রতিমাসে একাধিকবার আমাদের মুফতি সাহেবগন জুমের মাধ্যমে সরাসরি প্রশ্নের উত্তর দিয়ে থাকেন। সেই ক্লাসগুলোতেও জয়েন করার জন্য অনুরোধ করা গেল। ক্লাসের সিডিউল: fb.com/iomedu.org

Related questions

...