0 votes
159 views
in হালাল ও হারাম (Halal & Haram) by (37 points)
মা শখ করে হলুদ (পুরোটা হলুদই, হালকা সাদা সাদা ছোপ আছে মাঝে) পাঞ্জাবী এনেছে। এরপর থেকে লাল-হলুদ আনতে মানা করেছি। এখন না পড়লে মনে কষ্ট পাবে। আমার প্রশ্ন হচ্ছে,  এমতাবস্থায় কি এই পাঞ্জাবী পড়া যাবে? ধন্যবাদ।

1 Answer

0 votes
by (203,080 points)
বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম।
জবাবঃ-
মহান আল্লাহ বলেনঃ
ﻳَﺎ ﺑَﻨِﻲ ﺁﺩَﻡَ ﻗَﺪْ ﺃَﻧﺰَﻟْﻨَﺎ ﻋَﻠَﻴْﻜُﻢْ ﻟِﺒَﺎﺳًﺎ ﻳُﻮَﺍﺭِﻱ ﺳَﻮْﺀَﺍﺗِﻜُﻢْ ﻭَﺭِﻳﺸًﺎ ﻭَﻟِﺒَﺎﺱُ ﺍﻟﺘَّﻘْﻮَﻯَ ﺫَﻟِﻚَ ﺧَﻴْﺮٌ ﺫَﻟِﻚَ ﻣِﻦْ ﺁﻳَﺎﺕِ ﺍﻟﻠّﻪِ ﻟَﻌَﻠَّﻬُﻢْ ﻳَﺬَّﻛَّﺮُﻭﻥَ
তরজমাঃ-হে বনী-আদম আমি তোমাদের জন্যে পোশাক অবর্তীণ করেছি, যা তোমাদের লজ্জাস্থান আবৃত করে এবং অবর্তীণ করেছি সাজ সজ্জার বস্ত্র এবং পরহেযগারীর পোশাক, এটি সর্বোত্তম। এটি আল্লাহর কুদরতেরঅন্যতম নিদর্শন, যাতে তারা চিন্তা-ভাবনা করে।[সূরা আল আ’রাফ ২৬]

পোষাকের ক্ষেত্রে ইসলামের কতিপয় মূলনীতির প্রতি লক্ষ্য রেখে একজন মুসলিম যে কোন পোষাক পরতে পারবে। ইসলামে তার অনুমোদন রয়েছে।মূলনীতি গুলো যেমন-

১। সতরকে আবৃত করে রাখা।

সতর সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন -https://www.ifatwa.info/975

২। বিশেষ শ্রেণীর কাপড় সম্পর্কে শরয়ী বিধিনিষেধ মান্য করা।

যেমন-(ক)পুরুষদের জন্য রেশমি কাপড় পরিধান না করা।(খ)পুরুষদের জন্য স্বর্ণ ব্যবহার না করা।অহংকার মূলক তথা টাখনুর নিচে পরিধান না করা। এ প্রসঙ্গে কিছু হাদীস উল্লেখ করা হল :
হযরত উমর রাযি থেকে বর্ণিত,
سَمِعْتُ عُمَرَ، يَقُولُ: قَالَ النَّبِيُّ صَلَّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ: «مَنْ لَبِسَ الحَرِيرَ فِي الدُّنْيَا لَمْ يَلْبَسْهُ فِي الآخِرَةِ»
রাসূলুল্লাহ সাঃ বলেন,যে ব্যক্তি দুনিয়াতে রেশম পরিধান করবে সে আখেরাতে তা থেকে বঞ্চিত হবে।-সহীহ বুখারী(শামেলা) হাদীস : ৫৮৩৪;সহীহ মুসলিম, হাদীস : ২০৬৯/১১

হযরত আবু মুসা আশআরী রাযি থেকে বর্ণিত,
عَنْ أَبِي مُوسَى الأَشْعَرِيِّ، أَنَّ رَسُولَ اللهِ صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ قَالَ: حُرِّمَ لِبَاسُ الحَرِيرِ وَالذَّهَبِ عَلَى ذُكُورِ أُمَّتِي وَأُحِلَّ لِإِنَاثِهِمْ
রাসূলুল্লাহ সাঃ বলেন,আমার উম্মতের পুরুষের জন্য রেশমের পোষাক ও স্বর্ণ হারাম করা হয়েছে আর তা হালাল করা হয়েছে মহিলাদের জন্য।-সুনানে তিরমিযী(শামেলা) হাদীস : ১৭২০

 হযরত ইবনে আব্বাস রাযি থেকে বর্ণিত
عَنِ ابْنِ عَبَّاسٍ، قَالَ: قَالَ رَسُولُ اللَّهِ صَلَّى اللهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ " الْبَسُوا مِنْ ثِيَابِكُمُ الْبَيَاضَ، فَإِنَّهَا مِنْ خَيْرِ ثِيَابِكُمْ، وَكَفِّنُوا فِيهَا مَوْتَاكُمْ، وَإِنَّ خَيْرَ أَكْحَالِكُمُ الْإِثْمِدُ: يَجْلُو الْبَصَرَ، وَيُنْبِتُ الشَّعْرَ "
রাসূলুল্লাহ সাঃ বলেন,তোমরা সাদা কাপড় পরিধান কর। কেননা তা তোমাদের উত্তম কাপড়ের অন্যতম আর তাতেই তোমাদের মৃতদেরকে কাফন দাও।সর্বোত্তম সুরমা হল ইছমিদ,যা চক্ষুর পাওয়ারকে উন্নত করে এবং চুল গজায়।-সুনানে আবু দাউদ(শামেলা) হাদীস : ৪০৬১

৩। নারী-পুরুষ একে অন্যের সাদৃশ্য গ্রহণ না করা।
এ প্রসঙ্গে হাদীস শরীফে অত্যন্ত কঠোর হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করা হয়েছে।
আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস রা. থেকে বর্ণিত,তিনি বলেন,
ﻋَﻦْ ﺍﺑْﻦِ ﻋَﺒَّﺎﺱٍ ﺭَﺿِﻲَ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﻋَﻨْﻬُﻤَﺎ ﻗَﺎﻝَ : ( ﻟَﻌَﻦَ ﺭَﺳُﻮﻝُ ﺍﻟﻠَّﻪِ ﺻَﻠَّﻰ ﺍﻟﻠَّﻪُ ﻋَﻠَﻴْﻪِ ﻭَﺳَﻠَّﻢَ ﺍﻟْﻤُﺘَﺸَﺒِّﻬِﻴﻦَ ﻣِﻦْ ﺍﻟﺮِّﺟَﺎﻝِ ﺑِﺎﻟﻨِّﺴَﺎﺀِ ، ﻭَﺍﻟْﻤُﺘَﺸَﺒِّﻬَﺎﺕِ ﻣِﻦْ ﺍﻟﻨِّﺴَﺎﺀِ ﺑِﺎﻟﺮِّﺟَﺎﻝِ ) .
তরজমাঃ নবীজী সাঃ মহিলার সাদৃশ্য গ্রহণকারী পুরুষ ও পুরুষের সাদৃশ্য গ্রহণকারী মহিলার উপর লা'নত দিয়েছেন। সহীহ বুখারী-৫৪২৫।

...........বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন-https://www.ifatwa.info/1036

মহিলাদের জন্য সকল রংয়ের পোষাক পড়া জায়েয আছে।পুরুষের জন্য খালিছ লাল এবং হলুদ রংয়ের পোষাক নিয়ে মতপার্থক্য বিদ্যমান রয়েছে।তবে বিশুদ্ধ মতানুযায়ী পুরুষদের জন্যও অনুমতি রয়েছে।তবে শর্ত হলো,মহিলাদের সাদৃশ্য না হওয়া।কিতাবুন-নাওয়াযিল-১৫/৩৩০,ইমদাদুল ফাতাওয়া-৪/১২৫, ফাতাওয়ায়ে রাশিদিয়্যাহ-৫৮৫)
لما فى الشامية ،ج:٦ص:٣٨٥
وكره لبس المعصفر والمزعفر الأحمر والاصفر للرجال مفاده انه لايكره للنساء 

প্রিয় প্রশ্নকারী দ্বীনী ভাই/বোন!
যেহেতু আপনার মা শখ করে ঐ পাঞ্জাবী এনেছে তাই পরিধান করতে পারবেন। 


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

--------------------------------
মুফতী ইমদাদুল হক
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

ﻓَﺎﺳْﺄَﻟُﻮﺍْ ﺃَﻫْﻞَ ﺍﻟﺬِّﻛْﺮِ ﺇِﻥ ﻛُﻨﺘُﻢْ ﻻَ ﺗَﻌْﻠَﻤُﻮﻥَ অতএব জ্ঞানীদেরকে জিজ্ঞেস করো, যদি তোমরা না জানো। সূরা নাহল-৪৩

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন উত্তর পাওয়া যায় কিনা। না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন।

Related questions

...