0 votes
22 views
in Salah (Prayer) by
আসসালামু আলাইকুম।
আমার বাসার আশে পাশে অনেক মসজিদ হওয়াতে আজানের সময় অনেক আজান একত্রে শুনা যায়। সর্বাধিক কাছের মসজিদের আজানের জবাব আমি দিয়ে থাকি। এখন এই প্রসঙ্গে আমার প্রশ্নগুলো হলো-
১। সব থেকে কাছের মসজিদের আজান এর জবাব দেওয়ার পর যখন আজানের দুয়া এবং অন্যান্য ইহ-পরকালীন কল্যানের দুয়া করতে থাকি, তখন যদি অন্যান্য মসজিদে আজান চলতে থাকে, আর সেগুলোর আওয়াজও যথেষ্ট জোরালো হয়, সেক্ষেত্রে কি আমি ওইসব আজান চলাকালীন দুয়া কাল পড়তে থাকতে পারবো? নাকি শেষ হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করা উচিৎ?
২। একই ভাবে, কাছের মসজিদের আজানের জবাব সম্পূর্ণ হবার সাথে সাথে যদি নামাজে দাঁড়াই, আর তখন অন্যান্য আজান চলতে থাকে, তো সেই সব আজান চলাকালীন নামাজে দাঁড়িয়ে গেলে কোন সমস্যা আছে কি??
৩। কখনো যদি ওয়াক্ত হবার সাথে নামাজে দাঁড়িয়ে যাই, আর আমার নামাজের সালাম ফিরানোর কিছু আগে নিকটবর্তী মসজিদের আজান শুরু হয়, আর আমি সালাম ফিরানোর পর আজানের শেষ বাক্যগুলো পাই, তখন কি আমি শুধু ওই শেষ বাক্যগুলোর জবাব দেবো? নাকি আগের যেগুলো নামাজে থাকতেই গত হয়ে গেছে সেগুলো আগে বলে নিয়ে তারপর শেষ অংশ জবাব দেবো?
৪। নামাজের সালাম ফিরিয়ে মাসনুন দুয়া করতে থাকি, আর তখন যদি আজান শুরু হয় কোথাও, তাহলে কি দুয়া পড়া আজান শেষ হওয়া পর্যন্ত বন্ধ রাখবো? পড়তে থাকলে কি সমস্যা হবে?
৫। আজানের কিছু বাক্য যদি অন্যমনষ্কতার কারণে জবাব দিতে না পারি, আর ততক্ষণে বেশ কয়টি বাক্য পার হয়ে যায়, সেক্ষেত্রে কি আগের সব জবাব দিয়ে নিয়ে তারপর শেষ গুলো জবাব দেবো?
 
জানিয়ে উপকৃত করবেন দয়া করে।
জাযাকাল্লাহু খাইরান।

1 Answer

0 votes
by (890 points)

ওআলাইকুম ওয়াস্সালাম।
১. ২ .৪ — আপনার কাছের মসজিদ; যে মসজিদে আপনারা পাচঁ ওয়াক্ত নামায আদায় করেন, সেই মসজিদের সাথে আপনার প্রশ্নে উল্লেখিত যাবতীয় আমাল সম্পর্কিত হবে।অতএব অন্য মসজিদের আযানের সাথে আপনি আপনার আমালকে কন্টিনিও করতে পারবেন।কোন সমস্যা নেই।
৩.৫— যতটুকু পাবেন ততটুকুরই জবাব দিবেন। জাযাকাল্লাহ
আরিফুল ইসলাম
ফিক্বহ ও ফাতওয়া ডি. আই ও এম।

Welcome to Islamic Fatwa, where you can ask any Islamic questions and receive answers from dedicated scholars.
...