0 votes
22 views
in বিবিধ মাস’আলা (Miscellaneous Fiqh) by (9 points)
১. গোসলের ফরয আদায় করলে,ফরয গোসল নেয়ার পর ওযু না করলেও নামাজ পড়া,কুরআন তিলাওয়াত করা যায় বলে আমি জানি,এখন আমি যদি গোসলের ফরয আদায় করে নামায আদায় করার উদ্দেশ্য করে থাকি,কিন্তু মাঝে জামা পরিধানের সময় উলংগ হলে কি আমার আবার ওযু করে সালাত আদায় করতে হবে?

২. পরিপুর্ণ ওযু করার পর উলংগ হলেও কি ওযু ভাংতে পারে?

1 Answer

0 votes
by (283,200 points)


বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম।
জবাবঃ-
(১)
https://www.ifatwa.info/5744 নং ফাতাওয়ায় বলেছি যে,
ওজু ভঙ্গের মৌলিক কারণ ১২টি।
(১)
মলদ্বার ও মুত্রদ্বার থেকে যা কিছু বের হয়,তবে বিশুদ্বতম অভিমত অনুযায়ী, মুত্রদ্বার থেকে নির্গত বায়ুর কারণে ওজু ভঙ্গ হবে না।
(২)রক্তক্ষরণ ব্যতিরেকে সন্তানের জন্ম।
(৩)মুত্রদ্বার ও মলদ্বার ব্যতীত অন্য কোন স্থান থেকে প্রবাহিত নাপাক বস্তু,যেমনঃরক্ত,পুজ।
(৪)খাবার,পানি,জমাট রক্ত,অথবা পিত্তপানি,মুখভরে বমি করা।
(৫)থুথুমিশ্রিত রক্ত,যা পরিমাণে থুথুর চেয়ে বেশী হয় অথবা থুথুর সমপরিমাণ হয়।
(৬)এমন নিদ্রা যার ফলে নিতম্ব ভূমিতে স্থির থাকে না।
(৭)ঘুমন্ত ব্যক্তি জাগ্রত হওয়ার পূর্বে তার নিতম্ব উপরে উঠে যাওয়া,এতে যদি সে পড়ে নাও যায়,তথাপি ও তার ওজু ভেঙ্গে যাবে।
(৮)বেহুঁশ হয়ে যাওয়া।
(৯)উন্মাদ হয়ে যাওয়া।
(১০)নেশাগ্রস্ত হওয়া।
(১১)রুকু সিজদা বিশিষ্ট নামাযে প্রাপ্তবয়স্ক জাগ্রত ব্যক্তির অট্টহাসি।
(১২)কোন আবরণ ব্যতিরেকে দণ্ডায়মান পুরুষাঙ্গ দ্বারা যোনি স্পর্শ করা।

সু-প্রিয় পাঠকবর্গ ও প্রশ্নকারী দ্বীনী ভাই/বোন!
অজুর করার পর বা অজু থাকাবস্থায় যদি কেউ উলঙ্গ হয়ে যায়, তাহলে এজন্য অজু ভঙ্গ হবে না।

(২)
পরিপূর্ণ অজু করার পরও যদি কেউ উলঙ্গ হয়ে যায়, তাহলেও অজু ভঙ্গ হবে না।


(আল্লাহ-ই ভালো জানেন)

--------------------------------
মুফতী ইমদাদুল হক
ইফতা বিভাগ
Islamic Online Madrasah(IOM)

আই ফতোয়া  ওয়েবসাইট বাংলাদেশের অন্যতম একটি নির্ভরযোগ্য ফতোয়া বিষয়ক সাইট। যেটি IOM এর ইফতা বিভাগ দ্বারা পরিচালিত।  যেকোন প্রশ্ন করার আগে আপনার প্রশ্নটি সার্চ বক্সে লিখে সার্চ করে দেখুন। উত্তর না পেলে প্রশ্ন করতে পারেন। আপনি প্রতিমাসে সর্বোচ্চ ৪ টি প্রশ্ন করতে পারবেন।

বি.দ্র: প্রশ্ন করা ও ইলম অর্জনের সবচেয়ে ভালো মাধ্যম হলো সরাসরি মুফতি সাহেবের কাছে গিয়ে প্রশ্ন করা যেখানে প্রশ্নকারীর প্রশ্ন বিস্তারিত জানার ও বোঝার সুযোগ থাকে। যাদের এই ধরণের সুযোগ কম তাদের জন্য এই সাইট। প্রশ্নকারীর প্রশ্নের অস্পষ্টতার কারনে ও কিছু বিষয়ে কোরআন ও হাদীসের একাধিক বর্ণনার কারনে অনেক সময় কিছু উত্তরে ভিন্নতা আসতে পারে। তাই কোনো বড় সিদ্ধান্ত এই সাইটের উপর ভিত্তি করে না নিয়ে বরং সরাসরি মুফতি সাহেবদের সাথে যোগাযোগ করলে ভালো হয়। অন্যদিকে প্রতিমাসে একাধিকবার আমাদের মুফতি সাহেবগন জুমের মাধ্যমে সরাসরি প্রশ্নের উত্তর দিয়ে থাকেন। সেই ক্লাসগুলোতেও জয়েন করার জন্য অনুরোধ করা গেল। ক্লাসের সিডিউল: fb.com/iomedu.org

Related questions

...